1. arjunkumer1977@gmail.com : Arjun :
  2. bd.dainikonlineshiksha@gmail.com : দৈনিক অনলাইন শিক্ষা :
  3. yesamahmud1986@gmail.com : Yousuf :
শুক্রবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২২, ১১:০৭ পূর্বাহ্ন
বিজ্ঞাপন নোটিশ :
* * সাংবাদিক নিয়োগ * * দৈনিক অনলাইন শিক্ষাতে সংবাদকর্মী নিয়োগ চলছে *** স্বনামধন্য দৈনিক অনলাইন শিক্ষা / অনলাইন নিউজ পত্রিকাতে জেলা- উপজেলা পর্যায়ে সংবাদকর্মী আবশ্যক *** শুধুমাত্র আগ্রহী প্রার্থী সদ্যতোলা এক কপি পাসপোর্ট সাইজের ছবি ও ভোটার আইডি কার্ড এর কালার এপিঠ ওপিঠ ফটোকপি এবং ইংরেজিতে সিভি গ্রহণযোগ্য নয়, শুধুমাত্র বাংলায় লেখা জীবন বৃত্তান্ত সিভি পাঠান দৈনিক অনলাইন শিক্ষার এই জিমেইল নাম্বারে- bd.dainikonlineshiksha@gmail.com *** আরো বিস্তারিত তথ্যের জন্য ও দৈনিক অনলাইন শিক্ষাতে সংবাদকর্মী হিসেবে নিয়োগ পেতে সরাসরি দৈনিক অনলাইন শিক্ষার সম্পাদকের মুঠোফোনে যোগাযোগ করুন- 01886 - 902317 ** সকল প্রকার নিউজ পাঠান দৈনিক অনলাইন শিক্ষার এই জিমেইল নাম্বারে-dainikonlineshiksha@gmail.com শিক্ষাবিষয়ক ওয়েবসাইট দৈনিক অনলাইন শিক্ষা / সত্য প্রকাশে আপোসহীন **

সহকারী শিক্ষক পদে ১৪ লাখ টাকা ঘুষ দিয়েও চাকরি হয়নি

  • প্রকাশিত: বুধবার, ১২ অক্টোবর, ২০২২
  • ৪৫ ৭১৫ বার পড়া হয়েছে

সহকারী শিক্ষক পদে ১৪ লাখ টাকা ঘুষ দিয়েও চাকরি হয়নি

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি

ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ মোবারক আলী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক পদে ঘুষ দিয়েও চাকরি পায়নি ফাহিমা খাতুন নামে এক নারী। তিনি প্রতিকার চেয়ে স্থানীয় সংসদ সদস্যের কাছে লিখিত অভিযোগ করেছেন।

ফাহিমা খাতুন ঝিনাইদহ সদর উপজেলার খামারাইল গ্রামের ইউসুফ বিশ্বাসের মেয়ে।

লিখিত অভিযোগে ফাহিমা খাতুন দাবি করেন ২০১৬ সালে মোবারক আলী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষক (সমাজ বিজ্ঞান) হিসেবে যোগদান করেন। প্রথম ধাপে তিনি বিদ্যালয়ের সভাপতি লাভলু হোসেনকে সাড়ে ৬ লাখ টাকা ঘুষ দেন। এরপর প্রধান শিক্ষককে দেন ৪ লাখ টাকা।

পরে আরও টাকা চাওয়া হয়। টাকা না দিলে হাজিরা খাতায় স্বাক্ষর করতে দিতেন না। বহু কষ্টে পরে আরও দেড় লাখ টাকা দিলে শিক্ষক হাজিরা খাতায় স্বাক্ষর করতে দেন।

এরপর ঝিনাইদহ জেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসে বেতন করার নামে এক লাখ টাকা ও খুলনা ডিডি অফিসে ঘুষ দেয়ার নামে আরও দুই লাখ টাকা হাতিয়ে নেন। এমপিও ভুক্ত করার শেষ ধাপে এসেও বিদ্যালয়ের আইসিটি শিক্ষক সোহরাব হোসেন ২০ হাজার টাকা গ্রহণ করেন।

ফাহিমা খাতুন অভিযোগে আরও উল্লেখ করেন, ধাপে ধাপে তার কাছ থেকে প্রায় ১৪ লাখ টাকা গ্রহণ করার পরও তার চাকরি হয়নি। তার স্থানে আরেক নারীকে নিয়োগ দিয়ে বেতন করে আনা হয়েছে বলে অভিযোগ করেন তিনি।

এ বিষয়ে মোবারক আলী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সভাপতি গোলাম রসুল জানান, তিনি নতুন দায়িত্ব নিয়েছেন। বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

আরো সংবাদ পড়ুন
দৈনিক অনলাইন শিক্ষা-অনলাইন নিউজ পত্রিকার যে কোনো লেখা, বা, ছবি, ও ভিডিও , অনুমতি ছাড়া কপি করা , বা, বে-আইনি ভাবে ব্যবহার করা আইনিভাবে দণ্ডনীয় অপরাধ। © সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত- ২০১৫
ওয়েবসাইট ডিজাইন প্রযুক্তি সহায়তায়: ইয়োলো হোস্ট
আপনার পছন্দের ভাষা পরিবর্তন করুন Translate »